রবিবার, ১৪ জুলাই ২০২৪, ০৬:৫২ অপরাহ্ন
সংবাদ শিরোনাম :
রাজবাড়ী জেলায় নৌকার প্রার্থীর পক্ষে নির্বাচন পরিচালনায় যুবলীগের কমিটি গোয়ালন্দে মহাসড়কের পাশে বন বিভাগের ৫৪১টি গাছ কেটে নিয়ে গেছে দুর্বৃত্তরা রাজবাড়ীতে নিরাপদ অভিবাসন ও দক্ষতা উন্নয়ন শীর্ষক সেমিনার অনুষ্ঠিত রাজবাড়ী থিয়েটারের আয়োজনে চার দিনব্যাপী নাট্যোৎসব শুরু রাজবাড়ী কালেক্টরেটের পক্ষ থেকে এডিসি মাহাবুর রহমানকে বিদায় সংবর্ধনা প্রদান রাজবাড়ী জেলা পুলিশের পক্ষ থেকে এডিসিকে বিদায় সংবর্ধনা পাংশায় অস্ত্র মামলায় গ্রেফতারকৃত কৃষক লীগ নেতা হেনা মুন্সী শ্রীঘরে পাংশায় নিপা ভাইরাস সংক্রমণ প্রতিরোধে জনসচেতনতায় র‌্যালী ও আলোচনা সভা পাংশায় ইটভাটার মালিককে ৫০ হাজার টাকা জরিমানা কুয়াশায় দৌলতদিয়া-পাটুরিয়া নৌরুটে সোয়া তিন ঘন্টা ফেরী চলাচল বন্ধ

অপচিকিৎসায় শিশুর একটি চোখ নষ্ট করায় ভুয়া হোমিওপ্যাথি চিকিৎসক মাসুদ গ্রেপ্তার

  • আপডেট টাইম : সোমবার, ১৫ জুলাই, ২০১৯, ৯.০২ পিএম
  • ৪৮৭ বার পঠিত

॥স্টাফ রিপোর্টার॥ হোমিওপ্যাথি চিকিৎসক পরিচয় দিয়ে সাড়ে ৩বছর বয়সী ছানি পড়া শিশুর একটি চোখ চিরতরে নষ্ট করে ফেলেছে রাজবাড়ী শহরের পাবলিক হেলথ এলাকার মাসুদ মাহবুব(৪০) নামের একজন স্টুডিও দোকানী।
এ ঘটনায় ওই শিশুর দাদা বাদী হয়ে রাজবাড়ী থানায় মামলা দায়ের করলে পুলিশ অভিযুক্ত মাসুদ মাহবুবকে গ্রেফতার করে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে প্রেরণ করেছে। চোখ হারানো শিশুটির নাম সোনিয়া(৪বছর)। সে রাজবাড়ী সদর উপজেলার রামকান্তপুর তালুকদারপাড়ার গ্রামের কৃষি শ্রমিক রফিক সরদারের মেয়ে।
সোনিয়ার দাদা রিক্সা চালক খোরশেদ সরদার জানান, তার নাতনি সোনিয়ার ডান চোখে ছানি পড়লে তিনি ছানি রোগের চিকিৎসকের খোঁজ করতে থাকেন। লোক মারফত মাসুদ মাহবুবের কথা জানতে পেরে গত ১০/০৪/২০১৯ইং তারিখ সকাল সাড়ে ৯টার দিকে পুত্রবধূ রুবিয়া বেগমের সাথে নাতনি সোনিয়াকে নিয়ে পাবলিক হেলথ এলাকায় মাসুদ মাহবুবের ‘সিঙ্গাপুর স্টুডিও’ নামক দোকানে আসেন। মাসুদ মাহবুব নিজেকে হোমিও চিকিৎসক পরিচয় দিয়ে প্রকাশ করে, ‘কোন সমস্যা নাই। ১৮ মাসের চিকিৎসায় সোনিয়ার চোখ পুরোপুরি ভালো হয়ে যাবে।’ এরপর মাসুদ মাহবুব তার কাছ থেকে ১হাজার টাকা গ্রহণ করে এবং প্রতি সপ্তাহে ১শ’ টাকা করে গ্রহণ করে সোনিয়ার ছানি পড়া ডান চোখের চিকিৎসা করার অঙ্গীকার করে। সে অনুযায়ী মাসুদ মাহবুব সোনিয়ার চোখের চিকিৎসা করে। কিন্তু তার দেয়া ওষুধ ব্যবহার করতে থাকলে সোনিয়ার চোখের অবস্থা আরো খারাপ হতে থাকে এবং মাসখানেক পূর্বে তার চোখ একেবারে বাইরে(কোটরের) বের হয়ে আসে। বিষয়টি মাসুদ মাহবুবকে জানালে সে কোন ব্যবস্থা গ্রহণ না করে তাকে ঢাকায় নিতে বলে।
কোন চিকিৎসক না হয়েও মাসুদ মাহবুব ভুল ওষুধ দিয়ে তার নাতনির চোখে অপচিকিৎসা করে চোখটি চিরতরে নষ্ট করে দিয়েছে। বর্তমানে তার নাতনিকে ঢাকার ইসলামিয়া চক্ষু হাসপাতালের ডাক্তারদের পরামর্শ অনুযায়ী চিকিৎসা করানো হচ্ছে। কিছুদিনের মধ্যেই অপারেশন করে চোখটি ফেলে দিতে বলে তারা জানিয়েছেন।
রাজবাড়ী থানার ওসি স্বজন কুমার মজুমদার জানান, ‘ঘটনাটি খুবই দুঃখজনক। অপচিকিৎসায় শিশুটির চোখ চিরতরে নষ্ট হয়ে গেছে। এ ব্যাপারে শিশুটির দাদার দাখিলকৃত এজাহারটি মামলা হিসেবে রেকর্ড করে মাসুদ মাহবুবকে গ্রেফতার করে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে। আসামী মাসুদ মাহবুবের যাতে উপযুক্ত শাস্তি হয় সে জন্য যথাযথভাবে মামলাটির তদন্ত করে আদালতে অভিযোগপত্র দেয়া হবে।’ রাজবাড়ী থানার মামলা নং-২২, তাং-১৪/০৭/২০১৯ইং, ধারাঃ ৩৩৮/৩২৬/৪১৯ দঃ বিঃ।
মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এস.আই মোঃ জাহিদুল ইসলাম(১) জানান, থানায় মামলা রেকর্ডের পর শহরের পাবলিক হেলথ এলাকার থেকে আসামী মাসুদ মাহবুবকে গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকৃত মাসুদ মাহবুবকে গতকাল ১৫ই জুলাই আদালতে সোপর্দ করা হলে বিজ্ঞ আদালত তাকে জেল হাজতে প্রেরণ করেছে।

নিউজটি শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর..

Leave a Reply

Your email address will not be published.

© All rights reserved  2019 Rajbarisangbad
Theme Developed BY ThemesBazar.Com